• রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ১২:৫৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
সামাজিক কাজে অবদান রাখায় সংবর্র্ধিত হলেন কাজিপুরের সোনামুখী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কাজিপুরে আনোয়ারা আজাদ ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশনের ঈদ সামগ্রী বিতরণ কাজিপুরে আনোয়ারা আজাদ ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশনের ঈদ সামগ্রী বিতরণ বগুড়ায় মাটিডালী যুব ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ঈদ সামগ্রী বিতরণ শিবগঞ্জে প্রবীণ কল্যাণ ফাউন্ডেশন এর উদ্যোগে ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ সারিয়াকান্দি কুতুবপুর ইউনিয়নে হতদরিদ্রদের মাঝে চাল বিতরণ ধামরাইয়ের কালিয়াগারে জানালা ভাঙা নিয়ে তুমুল ঝগড়া ও সংঘর্ষ উপস্থাপনায় সেরা হওয়ার লড়াইয়ে বগুড়ার তামান্না খন্দকার ঈদ উপহার পেলেন কাজিপুরের ১৪শ দুস্থ পরিবার মোহাম্মদ নাসিমের জন্মদিনে কোরান শরিফ বিতরণ করলেন এমপি জয়

দিনাজপুরে শহীদ বুদ্ধিজীবীরা মহান মুক্তিযুদ্ধকে সাফল্যের পথে এগিয়ে নিতে অসামান্য অবদান রেখেছেন

রিপোর্টারঃ / ২৫০ বার দেখা হয়েছে
প্রকাশিত হয়েছেঃ বৃহস্পতিবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০২২

মোঃ আফজাল হোসেন, দিনাজপুর প্রতিনিধি:
দিনাজপুর থেকে সিদ্দিক হোসেনঃ দিনাজপুরে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত হয়েছে। ১৪ ডিসেম্বর দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ড ও কর্মচারী ইউনিয়নের আয়োজনে শিক্ষাবোর্ড চত্বরে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা ও চেহেলগাজী মাজার প্রাঙ্গনে শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতি স্তম্ভে শ্রদ্ধাঞ্জলী অর্পন করে। এর পর শিক্ষাবোর্ড হলরুমে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ডের চেয়ারম্যান প্রফেসর মোঃ কামরুল ইসলামের সভাপতিত্বে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে বক্তব্য রাখছেন দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ডের সচিব জহির উদ্দীন, উপ-বিদ্যালয় পরিদর্শক মাহমুদুল আলম, দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ড কর্মচারী ইউনিয়নের সভাপতি আলহাজ্ব মোঃ মাসুদ আলম, সেকশন অফিসার মন্টু। সঞ্চালনে ছিলেন শিক্ষাবোর্ড কর্মচারী ইউনিয়নের সাধারন সম্পাদক মওদুদ উল করিম বাবু। এ ছাড়া উপস্থিত ছিলেন শিক্ষাবোর্ড কর্মচারী ইউনিয়নের সাবেক সাধারন সম্পাদক গোলাম রাব্বানী প্রমুখ।

আলোচনা সভা শেষে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। দোয়া মাহফিলে মোনাজাত পরিচালনা করেন জাহাঙ্গীর আলম।সভাপতির বক্তব্যে দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ডেও চেয়ারম্যান প্রফেসর মোঃ কামরুল ইসলাম বলেন, বিজয়ের মাত্র দুইদিন আগে এই দিনে দেশকে মেধাশূন্য করার পূর্বপরিকল্পনা নিয়ে ঘর থেকে তুলে নিয়ে নৃশংসভাবে হত্যা করা হয় বাঙালি জাতির সেরা শিক্ষক, সাংবাদিক, চিকৎসক, প্রকৌশলী, সাহিত্যিক, বুদ্ধিজীবীসহ দেশের বরেণ্য কৃতী সন্তানদের। বুদ্ধিজীবীরা তাদের মেধা ও প্রজ্ঞার প্রয়োগ, শিল্প-সাহিত্যের চর্চা ও ক্ষুরধার লেখনীর মাধ্যমে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে জনমত তৈরি এবং মহান মুক্তিযুদ্ধকে সাফল্যের পথে এগিয়ে নিতে অসামান্য অবদান রেখেছেন।তিনি বলেন, মহান মুক্তিযুদ্ধে পরাজয় নিশ্চিত জেনে পাকিস্তানি বাহিনী বাঙালি জাতিকে মেধাশূন্য করার ঘৃণ্য চক্রান্ত করে। জাতি মহান মুক্তিযুদ্ধে ঘৃণ্য হত্যাকান্ডের শিকার শ্রেষ্ঠ সন্তানদের প্রদ্ধাভরে স্মরণ করবে।

 


এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন